GOVERNMENT JOB

Dpe Jobs news

Primary and Mass Education Minister. Mostafizur Rahman said that the teachers and teachers of the primary school will be appointed. On Sunday, he inaugurated the ‘Innovation Fair and Showcaseing 2018′ organized by the Primary Education Department on Sunday.

Mostafizur Rahman said, “In the primary education development project (PEDP) proposal. We will appoint music and sports teachers in each primary school. The standard of primary education is going forward. They have to develop their talents and body properly with the proper education of the students. Teachers, officials and employees must increase the sincerity. In order to make the students’ class more vivid, teachers will be appointed for sports and music subjects in each school. “He added,” Connectivity will be given on the road to the students of primary school. ”

A two-day innovative fair was started on Sunday by the Directorate of Primary Education at Mirpur’s Department. 30 organizations showcase their innovative ideas for the development of primary education.

Primary and Mass Education Minister said, ‘In a short time, it is possible to introduce staging of the medium and mid-day matches across the country. Currently, more innovative ideas are being taken. Among them, pension simplification, e-monitoring, system, dpi accounting system, e-primary school system and primary school e-management, teacher recruitment system, my dream is my school, attempt, honesty shop, and worker.

প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানিয়েছেন, প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সঙ্গীত ও ক্রীড়া শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে। রোববার দুপুরে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের আয়োজিত ‘উদ্ভাবনী মেলা ও শোকেসিং ২০১৮’ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এতথ্য জানান।

মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘প্রাথমিক শিক্ষা উন্নয়ন প্রকল্পে (পিইডিপি) প্রস্তাবনা। আমরা প্রতিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সঙ্গীত ও ক্রীড়া শিক্ষক নিয়োগ দেবো। প্রাথমিক শিক্ষার মান এগিয়ে যাচ্ছে। শিক্ষার্থীদের সঠিক শিক্ষা দিয়ে তাদের মেধা ও শরীর সঠিকভাবে গড়ে তুলতে হবে। শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আন্তরিকতা বাড়াতে হবে। শিক্ষার্থীদের ক্লাসকে আরও প্রাণবন্ত করে তুলতে প্রতিটি স্কুলে ক্রীড়া ও সঙ্গীত বিষয়ের শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে।’ তিনি আরো বলেন,‘প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের যাতাওয়াতের জন্য সড়কে কানেক্টটিভি দেয়া হবে।’

রোববার প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের উদ্যোগে দুই দিনব্যাপী উদ্ভাবনী মেলা শুরু হয় মিরপুরের অধিদপ্তরে। প্রাথমিক শিক্ষার মানোউন্নয়নে ৩০টি প্রতিষ্ঠান তাদের উদ্ভাবনী আইডিয়া প্রদর্শন করেন।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘অল্প সময়ের মধ্যে সারাদেশে মোবাইলের মাধ্যমে উপবৃত্তি দেওয়া, মিড-ডে মিল চালু করা সম্ভব হয়েছে। বর্তমানে আরও বিভিন্ন ধরনের উদ্ভাবনী আইডিয়া নিয়ে করা হচ্ছে। এর মধ্যে পেনশন সহজীকরণ, ই-মনিটরিং, সিস্টেম, ডিপিই অ্যাকাউন্টিং সিস্টেম, ই-প্রাইমারি স্কুল সিস্টেম ও প্রাথমিক বিদ্যালয় ই-ব্যবস্থাপনা, টিচার রিক্রুটমেন সিস্টেম, আমার স্বপ্ন আমার স্কুল, প্রয়াস, সততার দোকান, কর্মবীর অন্যতম।’

তিনি আরো বলেন, ‘উন্নয়নের সহাসড়কে ধাবমান বাংলাদেশের মানব সম্পদের কাঙ্ক্ষিত উন্নয়নে সব শিশুর জন্য মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিতকরা সরকারের অন্যতম অগ্রাধিকার। এ লক্ষ্য নিয়ে আমরা সবাই স্ব স্ব স্থান থেকে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।’

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবু হেনা মোস্তফা কামালের সভাপত্বিতে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব আসিফ উজ জামান, অতিরিক্ত সচিব এফ এম মঞ্জুর কাদির, অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক মো. রমজান আলী। এতে আরও উপস্থিত ছিলে রাজধানীর বিভিন্ন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী-শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী, মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। সূত্রঃ বাংলাদেশটাইমস্

He also said, “Defining the standard primary education for all children in the desired development of human resources, which are running the development of the co-operation of Bangladesh, one of the priorities of the government. We are trying every effort from our own place. ”

Primary and Mass Education Ministry Secretary Asif Uj Zaman, Additional Secretary FM Manzur Kadir, Additional Director General of the Department, Md Abdul Hamid were also present in the function, in the chairmanship of Director General of Primary Education Directorate, Abu Haneda Mostafa Kamal. Ramadan Ali It was also attended by senior officials of the primary school students – teachers, officers, employees, ministries and departments of the capital. Source: BangladeshTimes

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close